ছেলের অন্নপ্রাশনে জাঁকজমক না করে দুমুঠো অন্ন তুলে দিলেন দুঃস্থ মানুষদের মুখে

Subscribe Us

ছেলের অন্নপ্রাশনে জাঁকজমক না করে দুমুঠো অন্ন তুলে দিলেন দুঃস্থ মানুষদের মুখে



সোমনাথ মুখার্জী,পাণ্ডবেস্বর:- সকলের তরে সকলে আমরা প্রত্যেকে আমরা পরের তরে..... এই কথাটি মহৎ তাৎপর্যপূর্ণ।  তারই নিদর্শন দেখা গেল পাণ্ডবেশ্বরে। ছেলের অন্নপ্রাশন, ছেলের প্রথম মুখে ভাত , তাই চেষ্টা করলে হয়তো প্রচুর আত্মীয়স্বজনকে জাঁকজমক আয়োজন করে খাওয়াতে পারতেন কিন্তু তিনি তা করলেন না । এই করোনা পরিস্থিতিতে দুঃস্থ মানুষদের পাশে ছেলের অন্নপ্রাশন উপলক্ষে  প্রায় ৩০০ জন সমাজের দুস্থ ও পিছিয়ে পড়া মানুষদের মধ্যাহ্নভোজন করালেন। পাণ্ডবেশ্বরের সমাজসেবী তথা এক ইলেকট্রনিক মাধ্যমের সাংবাদিক সুভাষ ঘরুই তার ছেলের অন্নপ্রাশনে এমনই নিদর্শন রাখলেন।অন্নপ্রাশন মানেই যে শুধু  পায়েস খাওয়া নয়,এই বিশেষ দিনটিও যে একটু অন্যরকম ভাবে পালন করা যায় তাই ই বুঝি করে দেখালেন তিনি। অন্নপ্রাশনের দিন এই ব্যতিক্রমী আয়োজন করে রীতিমতো তাক লাগিয়ে দিলেন । 



তার কথায়, শুভদিনে লোক খাওয়ানো বা ভুঁড়িভোজের বিষয়ে তার তেমন আগ্রহ নেই। তাই এই ব্যতিক্রমী আয়োজনে মেতেছেন। এই বিশেষ দিনটিতে শতাধিক অসহায় ও দুঃস্থ মানুষের মধ্যে  দুমুঠো অন্ন তুলে দিতে পেরে তিনি আনন্দিত। এই  অনুষ্ঠানের শুভ সূচনা হয় বৈদ্যনাথপুর পঞ্চায়েত প্রধান জবা সাহার হাত দিয়ে শুরু হয়। উপস্থিত ছিলেন সমাজের আরো অন্যান্য ব্যক্তিত্বরা। এই মহৎ উদ্যোগকে সমাজের প্রত্যেকটি স্তরের মানুষ সাধুবাদ জানিয়েছেন।

Post a comment

0 Comments