শুক্রবার গভীররাতে মর্মান্তিক পথ দুর্ঘটনায় প্রাণ কেড়ে নিল দুই ফুটপাতবাসীর

Subscribe Us

শুক্রবার গভীররাতে মর্মান্তিক পথ দুর্ঘটনায় প্রাণ কেড়ে নিল দুই ফুটপাতবাসীর



শুক্রবার গভীররাতে এই ভয়ঙ্কর দুর্ঘটনাটি ঘটে বর্ধমান স্টেশন মোড়ে।একটি বেপরোয়া গাড়ি পিষে দেয় দুই ফুটপাতবাসীকে। বর্ধমান ষ্টেশন মোড়ে ওভারব্রিজের তলায় দুর্ঘটনাটি ঘটে। তবে ঘাতক গাড়িটিকে আটক করা যায়নি।বর্ধমান থাবার পুলিশ  ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। 
শুক্রবার রাত গভীররাতে তখন নতুন উড়ালপুলের নীচে গভীর ঘুমে আচ্ছন্ন বেশ কয়েকজন মানুষ।  রেলের পুরানো ওভারব্রিজ থেকে একটি চারচাকা গাড়ি তীব্র গতিতে ছুটে গিয়ে উড়ালপুলের নীচে শুয়ে থাকা দুই ফুটপাতবাসীকে চাপা দেয়।তারপর চালক গাড়ি ঘুরিয়ে নিয়ে নবাবহাটের দিকে গতি বাড়িয়ে চলে যায়। দুর্ঘটনার পর কয়েকজন ব্যবসায়ী ও অন্য ফুটপাতবাসীরা দেখেন এক জন বৃদ্ধ ও এক মহিলার মাথার উপর দিয়ে গাড়িটি চলে গেছে।জখম হয়েছেন এক ব্যক্তি। তাঁদের উদ্ধার করে বর্ধমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানেই দু'জনকে মৃত ঘোষণা করা হয়। যদিও তাঁদের নাম পরিচয় পাওয়া যায়নি।এই দুর্ঘটনার পর ব্যাপক আতঙ্ক ছড়িয়েছে গোটা ষ্টেশন এলাকায়।ষ্টেশন এলাকায় রাতে অনেকেই নতুন উড়ালপুলের নীচে শুয়ে থাকেন। তারা বেশির ভাগই ভবঘুরে বা ভিখারি। শুক্রবার রাতে ভয়াবহ দুর্ঘটনার পর তাঁরা সবাই  চিন্তিত। ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী সেখ ইরফান জানান, রাতে শুয়েছিলাম। হঠাৎ চিৎকার শুনতে পাই।তারপর  দেখি একটা চারচাকা গাড়ি নবাবহাটের দিকে চলে যাচ্ছে। পরে বুঝতে পারি, ওই গাড়িটাই দু'জনকে চাপা দিয়েছে। তাঁরা এই ঘটনায় বেশ ভয়ে আছেন।  ওই এলাকার ফল ব্যবসায়ীরা বলেন, রাত সাড়ে নটা পর্যন্ত ষ্টেশন এলাকায় ট্র্যাফিক থাকে। তারপর জনবহুল এলাকায় তীব্র গতিতে বাইক থেকে চারচাকা যাতায়াত করে। তার জেরেই এই দুর্ঘটনা।
এদিন দুর্ঘটনাস্থলে যান ডি এস পি হেড কোয়ার্টার শৌভিক পাত্র। সঙ্গে ছিলেন ট্র্যাফিক আধিকারিকরা। তাঁরা ঘটনাস্থল ঘুরে দেখেন। কথা বলেন স্থানীয়দের সঙ্গেও। জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কল্যাণ সিংহ রায় বলেন রাস্তার বিভিন্ন পয়েন্টে সিসি ক্যামেরা আছে।সে সব চেক করে দেখা হচ্ছে। 

Post a Comment

0 Comments

close