ভয় দেখিয়ে বাড়ির পরিচারিকাকে লাগাতার ধর্ষণ করার অভিযোগ উঠলো এক শিক্ষকের বিরুদ্ধে

Subscribe Us

ভয় দেখিয়ে বাড়ির পরিচারিকাকে লাগাতার ধর্ষণ করার অভিযোগ উঠলো এক শিক্ষকের বিরুদ্ধে





প্রতিনিধি,কাঁকসা:- কাঁকসা বিরুডিহায় দীর্ঘ কয়েক মাস ধরে ভয় দেখিয়ে বাড়ির পরিচারিকাকে লাগাতার ধর্ষণ করার অভিযোগ উঠলো বিরুডিহায় বাসিন্দা তথা শিক্ষক তথা বহিষ্কৃত বিজেপির ৪নম্বর মণ্ডলের সভাপতি কালু রাজ ঘোষ এর বিরুদ্ধে।
নির্যাতিতা কিশোরীর অভিযোগ, গত প্রায় ৬মাস ধরে নানান ধমকি দিয়ে লাগাতার তাকে ধর্ষণ করে আসছে কালু রাজ ঘোষ।নির্যাতিতা আরও জানায়, অভিযুক্তের স্ত্রী যখনই বাড়ির বাইরে কয়েকদিনের জন্য বেরোয় যেতেন তার পরেই ঘরে এক পেয়ে তার উপর অত্যাচার চালাতো অভিযুক্ত।গতকাল তাকে ফের ধর্ষণের চেষ্টা করলে বাধ্য হয়ে নির্যাতিতা তার পরিবার কে জানায়। নির্যাতিতার পিতার অভিযোগ মেয়ে ভয়ে কিছু জানাতো না।
গত প্রায় ৮বছর আগে পেশায় ক্ষেত মজুর কাঁকসার শোকনার বাসিন্দা তার মেয়েকে অভিযুক্ত কালু রাজ ঘোষের বাড়িতে পরিচারিকার কাজে পাঠায়।গতকাল মেয়ের কাছে নির্যাতনের ও ধর্ষণের ঘটনায় খবর পেয়ে কাঁকসা থানার দারস্ত হয়েছেন তিনি।নির্যাতিতা ও তার পরিবার অভিযুক্তের কঠোরতম শাস্তির দাবি দাবি জানিয়ে প্রশাসনের দারস্ত হয়েছে।ঘটনার খবর পেয়ে পাশে দাঁড়িয়েছেন গ্রামবাসীরা। ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে দোষী ব্যেক্তির কঠোরতম শাস্তির দাবি জানিয়েছেন গ্রামবাসীরা।
অপর দিকে ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন কাঁকসা ব্লকের তৃণমূলের ব্লক সভাপতি দেবদাস বক্সী।দেবদাস বাবু বলেন থানায় অভিযোগ জমা পড়েছে দোষী ব্যেক্তির বিরুধ্যে আইনানুগ ব্যাবস্থা নেওয়া হবে।পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে।
যদিও পশ্চিম বর্ধমান জেলার বিজেপির জেলা সভাপতি লক্ষণ ঘরুই জানিয়েছেন অভিযুক্ত কালু রাজ ঘোষ বিজেপি দলের কর্মী ছিলেন, তবে তাকে অনেকদিন আগেই দল বহিস্কার করেছে। ফলে এই ঘটনায় দল কোনো ভাবেই তার পাশে নেই ও দলের সাথে কোনো রকম সম্পর্ক নেই।যে দোষ করবে সে শাস্তি পাবেই।
এদিকে ঘটনা জানাজানি হতেই এলাকা ছেড়ে পালায় অভিযুক্ত কালু রাজ ঘোষ।পুলিশ অভিযুক্তের খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে।

Post a Comment

0 Comments