Subscribe Us

মানুষের ভীতি দূর করতে গ্রামে গ্রামে কোভিড পরীক্ষা শিবির পূর্ব বর্ধমানের গলসিতে

করোনা যুদ্ধে অভিনব উদ্দ্যোগ নিয়েছে গলসির পুরসা ব্লক প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্র।কোভিড  আতঙ্কে পরীক্ষার বিষয়ে কেউই আগ্রহী নয়।তাই এবার মানু‌ষের ভীতি দূর করতে গ্রামে গ্রামে করোনা পরীক্ষা শিবির এর আয়োজন করলেন গলসি স্বাস্থ্যকেন্দ্রের বিএমওএইচ ফারুক হোসেন। 

রবিবার পারাজ গ্রাম পঞ্চায়েতে উপসর্গ যুক্ত পঞ্চাশ জন ও উপসর্গ বিহীন ৯৬ জন গ্রামবাসীর কোবিড টেস্ট করা হয়। যার মধ্যে ১ জনের পজেটিভ আসে। আক্রান্তকে হোম কোয়ারিনটাইনে রেখে চিকিৎসার ব্যবস্থা করেছে স্বাস্থ্যকেন্দ্র। 

উপসর্গ থাকা ব্যক্তিরা যাতে সংক্রমণ না ছড়ায় তার জন্যই এমন উদ্দ্যোগ নেওয়া হয়েছে স্বাস্থ্য কেন্দ্রের পক্ষ থেকে।এলাকায় গ্রামবাসীদের করোনার যে কোন একটি উপসর্গ থাকলে তাদের কাছে পৌঁছে যাবেন ওই স্বাস্থ্যকর্মীদের টিম। 

তাদের থেকে নমুনা সংগ্রহ করে আক্রান্তদের চিকিৎসার ব্যবস্থা করবে।পজিটিভ হলে আক্রান্তকে আপাতত হোম কোয়ারিনটাইনে রেখে চিকিৎসার ব্যবস্থা করছেন চিকিৎসকরা।যাতে আক্রান্ত ব্যক্তি ভাইরাসকে না ছড়িয়ে দিতে পারে তার জন্যই এমন উদ্দ্যোগ নেওয়া হয়েছে। 

এদিকে সারা রাজ্যের সাথে সাথে পুুরসা ব্লক স্বাস্থ্যকেন্দ্রেও নিয়মিত কোভিডের রাপিড টেস্ট করা হচ্ছে। তবে সাধারণ মানুষ উপসর্গ থাকলে স্বাস্থ্যকেন্দ্রের এসে কোভিড পরীক্ষা বা চিকিৎসা করাতে ভয় করছেন। অজানা কোন একটা আতঙ্ক তাড়িয়ে বেড়াচ্ছে তাদের। 

এরফলে একদিকে যেমন করোনা চেন কাটতে ব্যর্থ হচ্ছেন চিকিৎসকেরা।তেমনি অন্যদিকে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ছে গ্রামে গ্রামে। তাছাড়া জ্বর সর্দির ওষুধ নিতে স্থানীয় ওষুধের দোকান গুলিতে ভিড় কমছে না।স্থানীয়দের স্বাস্থ্যের কথা মাথায় রেখেই এমন উদ্দ্যোগ নেওয়া হয়েছে পুরসা ব্লক প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রের পক্ষ থেকে।

Post a Comment

0 Comments