Subscribe Us

আউসগ্রাম, মঙ্গলকোট, বাসাপাড়া প্রভৃতি গ্রামগুলির গ্রামবাসীদের জন্য ত্রাণ সামগ্রী পাঠালেন বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল


শুভময় পাত্র,বীরভূম:- 'মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকার আছে কোন চিন্তা নেই, বিজেপি সরকার থাকলে চিন্তা ছিল', এমনটাই মন্তব্য করলেন বীরভূম জেলা তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। গত দুই দিনের টানা বৃষ্টিতে অজয় নদীর বাঁধ ভেঙ্গে যে কয়টি গ্রাম প্লাবিত হয়েছে তাদের কাছে ত্রাণ পৌঁছানোর লক্ষ্যে এমনটাই মন্তব্য করলেন বীরভূম জেলা তৃণমূল সুপ্রিমো। 

এদিন পূর্ব বর্ধমানের আউসগ্রাম থানার অন্তর্গত ভেদিয়া পার্শ্ববর্তী এলাকা ও মঙ্গলকোটের পাশাপাশি বীরভূমের বাসাপাড়া ও তার পার্শ্ববর্তী বেশকিছু গ্রাম প্লাবিত হয়। এমত অবস্থায় রীতিমতো উঠে পড়ে লেগেছে তৃণমূল কর্মী-সমর্থকরা। এদিন বোলপুর থেকে বীরভূম জেলা তৃণমূল সুপ্রিমো অনুব্রত মণ্ডল আউসগ্রাম, মঙ্গলকোট, বাসাপাড়া প্রভৃতি গ্রামগুলির উদ্দেশ্যে গ্রামবাসীদের জন্য ত্রাণ সামগ্রী পাঠানোর ব্যবস্থা করেন। 

ত্রিপল, চিরে, গুড় ও শাড়ি সবকিছু মিলে গাড়ি গাড়ি ত্রাণ সামগ্রী বোলপুর থেকে বন্যা কবলিত এলাকায় পাঠানো হয় অনুব্রত মণ্ডল এর নির্দেশে। বর্ধমানের আউসগ্রাম থানার অন্তর্গত ভেদিয়ার কাছে সাতলা গ্রামের বাঁধ ভেঙে জলমগ্ন এলাকা পাশাপাশি বাসাপাড়ার কাছে সুন্দরপুর নদী বাঁধ ভাঙ্গা প্লাবিত হয়েছে বহুগ্রাম বাদ পড়েনি বাসাপাড়াও। 



সূত্রের খবর ঝাড়খণ্ডের শিকাটিয়ার জলাধার থেকে ১ লক্ষ ২৫ হাজার কিউসেক জল ছাড়ার ফলে অজয় নদীর বাঁধ ভেঙেছে। নানুর থানার থুপসারা গ্রাম পঞ্চায়েতের অন্তর্গত সুন্দরপুর গ্রামের কাছে অজয় নদীর বাঁধ ভাঙ্গায় প্রায় ৩৫ থেকে ৪০ টা গ্রাম ইতিমধ্যেই জলমগ্ন। পাশাপাশি কয়েক হাজার হেক্টর জমি জলের তলায়, ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বহু ঘরবাড়ি। বীরভূম জেলা প্রশাসন ইতিমধ্যেই কাজ শুরু করে দিয়েছেন প্রশাসনিক কর্তা ব্যক্তিরা। পাশাপাশি তৃণমূল কর্মী সংগঠনের সদস্যরা জেলা সুপ্রিম নির্দেশমতো ত্রাণসামগ্রী পাঠাতে শুরু করেছেন বন্যা কবলিত এলাকা গুলিতে।

Post a Comment

0 Comments